জরুরি সভায় সিদ্ধান্ত দাবি না মান ১৮ আগস্টের পর জ্বালানী তেল উত্তোলন বন্ধের ঘোষণা

Header

রির্পোটিং প্রতিবেদন :‘বাংলাদেশ পেট্রোলিয়ামডিলার্স, ডিষ্ট্রিবিউটর্স, এজেন্টস এন্ড পেট্রোল পাম্প ওনার্স এসোসিয়েশন’’ আজ স্থানীয় একটি হোটেলে সংগঠনের সভাপতি সৈয়দ সাজ্জাদুল করিম কাবুল এর সভাপতিত্বে জরুরী সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় সিদ্ধান্ত গৃহীত হয় যে অচিরেই আলোচনার মাধ্যমে সমস্যার সমাধান করতে হবে। আগামী ১৮ই আগষ্ট ২০২২ইং তারিখের মধ্যে দাবি দাওয়া পুরণ না হলে পরবর্তী সপ্তাহ থেকে কঠোর আন্দোলন কর্মসূচী ঘোষণা করা হবে বলে সভায় সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়। সভায় জ্বালানী তেলের কমিশন বৃদ্ধি, ট্যাংকলরী ভাড়া বৃদ্ধিসহ অন্যান্য দাবি বাস্তবায়নের জন্য জোড় দাবি জানানো হয়। একই সাথে পেট্রোল পাম্পের উপর আরোপিত বিভিন্ন সংস্থার অপ্রয়োজনীয় লাইসেন্স বাতিল করারও সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। এ সভায় সারা দেশ থেকে পেট্রোলপাম্প ওনার্স এসোসিয়েশনের নেতৃবৃন্দ, ট্যাংকলরী মালিক সমিতির নেতৃবৃন্দ ও শ্রমিক ফেডারেশনএর নেতৃবৃন্দরা বক্তব্য রাখেন। পেট্রোলপাম্প ওনার্স এসোসিয়েশনের মহাসচিব বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃমিজানুর রহমান রতন বলেন, পেট্রোলপাম্প মালিক সমিতির পক্ষ থেকে ইতিমধ্যে দাবি-দাওয়া সম্বলিত চিঠি মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, জ্বালানী মন্ত্রণালয় ও বিপিসি-কে দেওয়া হয়েছে। দীর্ঘদিনের দাবি গুলো এখনও বাস্তবায়ন করা হয়নি। বরং পেট্রোলপাম্প মালিকদের ব্যাবসা পরিচালনার ক্ষেত্রে দিনের পর দিন প্রতিবন্ধকতা তৈরী করা হচ্ছে। আমরা বরাবরই চেয়েছি আলোচনার মাধ্যমে সমস্যা সমাধান করা। কিন্তু আমাদের ন্যায়সঙ্গত দাবি পূরণ করা হচ্ছে না। আজ সারাদেশের পেট্রোলপাম্প মালিক, ট্যাংকলরী মালিক ও শ্রমিকরা এৗক্যবদ্ধ হয়েছে এবং সিদ্ধান্ত নিয়েছে যে, আগামী ১৮ই আগষ্ট ২০২২ইং তারিখের মধ্যে দাবি দাওয়া পুরণ না হলে পরবর্তী সপ্তাহ থেকে কঠোর আন্দোলন কর্মসূচী ঘোষণা করা হবে। সেক্ষেত্রে দায়-দায়িত্ব সরকারকে নিতে হবে। এ সভায় আরও বক্তব্য রাখেন রাজশাহী বিভাগ থেকে আব্দুল আওয়াল জ্যোতি, খুলন াবিভাগ থেকে ফরহাদ হোসেন, মোস্তাফিজুর রহমান নীলু, ঢাকা থেকে মীর সোহেল, মোঃ আতিকুর রহমান, রিয়াজ শহীদ, মোঃ ইয়াসীন, ব্যারিস্টার মনজুর এ মোরশেদ, শ্রমিক ফেডারেশন এর পক্ষে মোঃ আসলাম, মোঃ জাহীদ প্রমুখ।

ads
ads

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *