আঞ্চলিক পরিচালক হতে চান সাবেক শিবির ক্যাডার প্রফেসর মো: আব্দুল খালেক

Header

রির্পোটিং,যশোর প্রতিনিধি:  সম্প্রতি যশোর শিক্ষা বোর্ডের সচিব প্রফেসর মো: আব্দুল খালেক সরকারকে রাজশাহী অঞ্চলের পরিচালক করার জন্য শিক্ষামন্ত্রণালয়ে বদলীর আদেশ প্রক্রিয়াধীন বলে একটি বিশ্বস্থ সুত্রে জানা গেছে।

স্থানীয় সুত্রে জানা গেছে, প্রফেসর মো: আব্দুল খালেক সরকার আওয়ামী পরিবারের সন্তান হলেও ছাত্র জীবনে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিবির ক্যাডার ছিলেন। এমনকি বর্তমান সময়েও সংগঠনে অতি গোপনে মাসিক ইয়ানত (চাাঁদা) প্রদান করে আসছেন বলে জানা যায়।

ইতিমধ্যে যশোর পৌর আওয়ামীলীগের এক সদস্য তার বিরুদ্ধে দুর্নীতি দমন কমিশনে তার বিরুদ্ধে অভিযোগ  করেছেন।
অভিযোগ সুত্রে জানা যায়, প্রফেসর মো: আব্দুল খালেক সরকার বিএনপি ও জামায়াতপন্থী কর্মকর্তাদের যোগসাজসে একটি সিন্ডিকেট নিয়ন্ত্রণ করেন এবং তার অধিনস্থ জামায়াত পন্থী কর্মকর্তা কর্মচারীদের পদোন্নতি দেওয়ার জন্য বিভিন্ন ভাবে সাহায্য ও তদবির করেন।

৮০’র দশকে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ব্যবস্থাপনা বিষয়ে পড়াশোনার সময়ে বিশ্ববিদ্যারয়ের পার্শ্ববর্তী এলাকা শিবির ঘাটি বলে খ্যাত বিনোদপুরের শিবিরের ম্যাচে অবস্থান করে রাজনৈতিক  দায়িত্ব পালন করতেন।

ads

তার নিজ এলাকা নওগাঁ জেলার সাপাহার উপজেলায় খোঁজ নিয়ে জানা যায়, তিনি ত্যাগী আওয়ামী পরিবারের সন্তান। কিন্তু রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ালেখার সময় বাংলাদেশ ইসলামী ছাত্র শিবিরের রাজনীতির সাথে জড়িয়ে পড়েন।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, মাত্র ৫/৬ মাস চাকুরির মেয়াদ থাকাকালীন সময়ে জামায়াত-শিবির অধ্যষিত রাজশাহী অঞ্চলের পরিচালক হওয়ার জন্য উঠে পড়ে লেগেছেন। যাতে করে বিভিন্ন অভিযোগে আটকে থাকা ঐ অঞ্চলের কলেজসমূহের শিক্ষক-কর্মচারীদের এমপিও সহজেই ছাড় করতে পারেন।

গোপনসুত্রে জানা গেছে, শিক্ষামন্ত্রণালয়ের এক কর্মকর্তা যশোর শিক্ষা বোর্ডে পূর্ণনিয়ন্ত্রণ করার জন্য বোর্ডের সচিবসহ তার পছন্দের কর্মকর্তাদের পদায়নের জন্য প্রফেসর মো: আব্দুল খালেক সরকারের সাথে আতাত করে এই বদলী বাস্তবায়ন করার চেষ্টা করছেন।

ads

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *